RESIST FASCIST TERROR IN WB BY TMC-MAOIST-POLICE-MEDIA NEXUS

(CLICK ON CAPTION/LINK/POSTING BELOW TO ENLARGE & READ)

Friday, February 10, 2017

৪৬সংস্থা গুটিয়ে ফেলার সিদ্ধান্তে তীব্র প্রতিবাদ সি আই টি ইউ-র নিজস্ব প্রতিনিধি কলকাতা, ৯ই ফেব্রুয়ারি— প্রশাসনিক সংস্কারের নামে কর্মী ছাঁটাই ও রাজ্য সরকারি সংস্থাকে গুটিয়ে ফেলার তীব্র প্রতিবাদ জানালো সি আই টি ইউ। উল্লেখ্য, বুধবার বিধানসভায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি রাজ্য সরকারি অধিগৃহীত ৪৬টি সংস্থার মৃত্যুঘণ্টা বাজিয়েছেন। তিনি বলেছেন বোর্ড, কর্পোরেশন মিলিয়ে ৯০টি রাজ্য সরকারি সংস্থার মধ্যে ৪৪টি সংস্থা মাত্র চালু থাকবে। বাকিগুলি গুটিয়ে ফেলা হবে। আর এটাই প্রশাসনিক সংস্কার। অথচ রাজ্য সরকারের এমন তুঘলকি ফতোয়ার জেরে রাজ্যে সরকারি ক্ষেত্রে প্রায় এক লক্ষ শূন্য পদ বিলুপ্ত হয়ে গেল। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর এমন তুঘলকি ফতোয়ার বিরুদ্ধে আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিয়েছে সি আই টি ইউ। এদিকে রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের কো-অর্ডিনেশন কমিটি এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আগামী ১৪ই ফেব্রুয়ারি টিফিনের বিরতিতে রাজ্যের সমস্ত সরকারি দপ্তরে বিক্ষোভের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বৃহস্পতিবার সি আই টি ইউ পশ্চিমবঙ্গ কমিটির পক্ষ থেকে রাজ্য সভাপতি শ্যামল চক্রবর্তী ও রাজ্য সাধারণ সম্পাদক দীপক দাশগুপ্ত এক প্রেস বিবৃতিতে বলেছেন, এই স্বৈরাচারী সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামবে সি আই টি ইউ। রাজ্য নেতৃবৃন্দ এদিন বিবৃতিতে বলেন, রাজ্যে রাজনৈতিক পালাবদলের পর থেকে গত সাড়ে পাঁচ বছরে সমস্ত শিল্পাঞ্চলগুলিতেই শিল্প বন্ধের মহাযজ্ঞ শুরু হয়েছে। শাসকদলের লাগামছাড়া তোলাবাজির জেরে রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থাগুলি এবং বেসরকারি সংস্থাও পাততাড়ি গুটোতে বাধ্য হচ্ছে। এই ভয়াবহ পরিস্থিতিতে বছর বছর ঘটা করে শিল্প সম্মেলন হলেও একটাও নতুন কারখানা তৈরি হচ্ছে না। প্রতিদিন কাজ চলে যাচ্ছে শিল্প শ্রমিকদের। এরসঙ্গেই রাজ্য সরকার এবার সরকার অধিগৃহীত সংস্থায় তালা ঝোলালে বহু শ্রমিক-কর্মচারীর ভবিষ্যৎ অন্ধকারে ডুবে যাবে। সি আই টি ইউ রাজ্য নেতৃত্ব এদিন বলেন, গোটা রাজ্যেই বন্ধ কল-কারখানা খোলার দাবিতে আন্দোলন করছে সি আই টি ইউ। চা বাগান, চটকল থেকে শুরু করে শিল্পাঞ্চলের ছোট, বড় মাঝারি কারখানাগুলি একের পর এক বন্ধ হচ্ছে। সরকারের এমন নীতির বিরোধিতায় সি আই টি ইউ সমস্ত অংশের শ্রমজীবী মানুষকে একজোট করে ঐক্যবদ্ধ লড়াই আন্দোলন সংগঠিত করবে।

No comments: