RESIST FASCIST TERROR IN WB BY TMC-MAOIST-POLICE-MEDIA NEXUS

(CLICK ON CAPTION/LINK/POSTING BELOW TO ENLARGE & READ)

Wednesday, June 24, 2015

FOOD SECURITY IN INDIA - নয়াদিল্লি, ২৯শে মে— দেশের খাদ্য নিরাপত্তা পরিস্থিতির ভয়াবহ অবস্থায় সর্বজনীন গণবণ্টন চালুর দাবি জানিয়েছে সি পি আই (এম) পলিট ব্যুরো। রাষ্ট্রসঙ্ঘের খাদ্য ও কৃষি সংস্থার ২০১৫-র রিপোর্টে ভারতে খাদ্য নিরাপত্তার অভাবের চিত্র প্রকট হয়েছে। শুক্রবার পলিট ব্যুরো এক বিবৃতিতে বলেছে, ফাও যে পদ্ধতিতে গণনা করে তাতে অপুষ্টি ও ক্ষুধার পরিমাণ যথেষ্ট কমিয়েই দেখানো হয়। তা সত্ত্বেও এমনকি এই রিপোর্টেও যা বলা হয়েছে তা ইউ পি এ এবং এখন মোদী সরকারের যাবতীয় দাবিকে নস্যাৎ করে দিচ্ছে। ভারত আজ পৃথিবীর সবচেয়ে বেশি ক্ষুধার্ত মানুষের বাসভূমি হয়ে দাঁড়িয়েছে। রাষ্ট্রসঙ্ঘের খাদ্য ও কৃষি সংস্থার ২০১৫-র রিপোর্টে ভারতে খাদ্য নিরাপত্তার অভাবের চিত্র প্রকট হয়েছে।এই রিপোর্টে জানানো হয়েছে, ২০১৪-১৫’র হিসেব অনুযায়ী ১৯কোটি ৪০লক্ষ ভারতবাসীর খাদ্য নিরাপত্তা নেই। বিশ্বের মোট ৭৯কোটি ৪৬লক্ষ ক্ষুধার্তের চার ভাগের এক ভাগই থাকে ভারতে। সি পি আই (এম) পলিট ব্যুরো। বলেছে, এই রিপোর্টের হিসেব অনুযায়ী মোদী সরকারের এক বছরে (২০১৪-১৫ এবং ২০১৬’র অনুমিত হিসেব) অপুষ্টিতে ভোগা মানুষের সংখ্যা ২০১২-র ১৮কোটি ৯৯লক্ষ থেকে বেড়ে ১৯কোটি ৪৬লক্ষ হয়েছে। ফাওয়ের রিপোর্টে বলা হয়েছে, ভারতে ক্ষুধার্ত মানুষের সংখ্যা গত পঁচিশ বছরে কমলেও তার গতি অত্যন্ত ধীর। পলিট ব্যুরো বলেছে, গত এক বছরে এই কমে আসার হার উল্লেখযোগ্য ভাবে কম। জনসংখ্যার অনুপাতে মাত্র ০.৪শতাংশ। ২০১০-১২পর্বেও তা ছিলো ৫শতাংশ। অন্য ভাবে বললে মোদী সরকারের আমলে পরিস্থিতির অবনতি ঘটেছে। সি পি আই (এম) পলিট ব্যুরো বলেছে, খাদ্য নিরাপত্তা আইনের রূপায়ণ ও তাকে উন্নত করার ক্ষেত্রে মোদী সরকার সচেতন ভাবে উদাসীনতা দেখাচ্ছে। মোদী সরকার নিজেকে গরিবের স্বার্থবাহী বলে তুলে ধরে যে মিথ্যা দাবি জানাচ্ছে তা বন্ধ করে সার্বজনীন গণবণ্টনকে নিশ্চিত করে পদক্ষেপ গ্রহণ করুক। রেশনে সর্বোচ্চ দু’টাকা কেজি দরে পরিবারপিছু ন্যূনতম ৩৫কেজি খাদশস্য দিতে হবে। রেশনে সরবরাহের তালিকাও বাড়াতে হবে। উল্লেখ্য, রাষ্ট্রসঙ্ঘের খাদ্য ও কৃষি সংস্থার ২০১৫-র রিপোর্টে ভারতে খাদ্য নিরাপত্তার অভাবের চিত্র প্রকট হয়েছে।ফাওয়ের রিপোর্টে নেপাল, বাংলাদেশের মতো প্রতিবেশীদের সাফল্যও ভারত থেকে বেশি নজর কেড়েছে। ২৫ বছরে ভারতে অপুষ্টিতে ভোগা মানুষের সংখ্যা কমেছে ৩৬শতাংশ। নেপালে কমেছে ৬৫শতাংশ, বাংলাদেশে ৪৯শতাংশের বেশি। ফাও রিপোর্ট অনুযায়ী ভারতে এখনও ১৫.২শতাংশ মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা নেই। এই হার উন্নয়নশীল দেশগুলির গড় হার ১২.৯শতাংশের থেকেও বেশি।

No comments: